> সংবাদ শিরোনাম
320989898_973054173671069_3727943891167372367_n

বছরের শুরুতে নতুন বই পেয়ে আনন্দে আত্মহারা স্বরূপকাঠির শিক্ষার্থীরা

 হযরত আলী হিরু, পিরোজপুরঃ উৎসব ও আনন্দঘন পরিবেশের মধ্য দিয়ে সারাদেশের ন্যায় পিরোজপুরের স্বরূপকাঠিতেও নতুন শিাবর্ষে শিার্থীদের হাতে নতুন পাঠ্যবই তুলে দেওয়া হয়েছে ।

বছরের প্রথমদিন নতুন বই হাতে পেয়ে উচ্ছ্বসিত শিার্থীরা। সকাল থেকেই উপজেলার সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে বই বিতরণ উপলক্ষে ছিল সাজ সাজ রব। নতুন বই পাওয়ার আনন্দে শিক্ষার্থীদের মধ্যে বইছিলো আনন্দের জোয়ার।

321529489_1336429647144387_8488012803981880814_n

বই বিতরণ উপলক্ষে রবিবার (১ জানুয়ারি) সকাল ১০ টায় সরকারি স্বরূপকাঠি পাইলট মডেল মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে শিার্থীদের হাতে নতুন পাঠ্যবই তুলে দিয়ে বই উৎসবের শুভ সূচনা করেন উপজেলা চেয়ারম্যান আব্দুল হক।

এ সময় অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. মাহাবুব উল্লাহ মজুমদার, পৌর মেয়র গোলাম কবির, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মো. জাহাঙ্গীর হোসেন, সরকারি স্বরূপকাঠি পাইলট মডেল মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক মো. কামাল হোসেন।

এদিকে, সকাল ১০টার পর থেকে উপজেলার আকলম মুসলিম মাধ্যমিক বিদ্যালয়, মাহমুদকাঠি ইছাম উদ্দিন মাধ্যমিক বিদ্যালয়, স্বরূপকাঠি কলেজিয়েট একাডেমী, আলকিরহাট আর এ মাধ্যমিক বিদ্যালয়, স্বরূপকাঠি কিন্ডার গার্টেন, স্বরূপকাঠি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, দক্ষিণ জগন্নাথকাঠি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, ঝিরবাড়ি প্রতিবন্ধী বিদ্যালয়ে বই উৎসব উপলক্ষে শিক্ষার্থী ও তাদের অভিবাবকদের উপস্থিতি ছিলো চোখে পড়ার মতো।

বছরের শুরুতে সন্তানের হাতে নতুন বই তুলে দেয়ার জন্য তারা বর্তমান সরকারকে ধন্যবাদ জানান। স্বরূপকাঠি কিন্ডার গার্টেনের প্লে শ্রেনীর শিক্ষার্থী শাহ আলী সুরাইনের অভিবাবক তার মা উম্মে কুলসুম হাসি জানান, ছেলে আজকে তার স্কুলজীবন শুরু করেছে।

এদিকে বছর শুরু অন্যদিকে প্রথম কাস এই শুভদিনে নতুন বই হাতে পাওয়ার আনন্দ বলে বোঝানো যাবেনা। ধন্যবাদ মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে বছরের শুরুতে শিক্ষার্থীদের এমন উপহার দেয়ার জন্য।

 

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, এবছর স্বরূপকাঠি উপজেলায় প্রাথমিকে ১৭০ প্রতিষ্ঠানে ১৪ হাজার জন শিক্ষার্থীর এবং মাধ্যমিকে ৯০ টি প্রতিষ্ঠানে ২৬ হাজার ৩ শত ৯৫ জন শিক্ষার্থীর হাতে নতুন বই তুলে দেয়া হয়েছে। এখনো প্রাথমিকের প্রথম ও দ্বিতীয় শ্রেনীর এবং মাধ্যমিকের কিছু বই সরবরাহ না হওয়ায় সাময়িক অসুবিধায় পড়তে হবে শিক্ষার্থীদের।

তবে এ অসুবিধা অতিদ্রুতই কেটে যাবে বলে জানান উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. জাহাঙ্গীর হোসেন ও উপজেলা ভারপ্রাপ্ত প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. ইলিয়াস আহম্মেদ আঁকন। তারা জানান, কিছু বই না আসলেও অতিশীগ্রই বইগুলো এসে পৌঁছে যাবে এবং পৌছামাত্রই শিক্ষার্থীদের হাতে বইগুলো তুলে দেয়া হবে।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful