স্কুল-কলেজকে টিউশন ফি নেওয়ার নির্দেশ সরকারের

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ করোনায় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকলেও টিউশন ফি পুরোপুরি পরিশোধ করতে হবে শিক্ষার্থীদের। তবে শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে অ্যাসাইনমেন্ট, টিফিন, পুনরায় ভর্তি, গ্রন্থাগার, বিজ্ঞানাগার, ম্যাগাজিন ও উন্নয়ন বাবদ কোনো ফি নিতে পারবে না বা নিলেও তা ফেরত দিতে হবে প্রতিষ্ঠান কর্তৃপক্ষকে।

এমন বিষয় যুক্ত করে টিউশন ফি সংক্রান্ত নির্দেশনা জারি করেছে সরকার। মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালকের স্বাক্ষরে এ নির্দেশনা বুধবার বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে পাঠানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, করোনা সংক্রমণের কারণে গত ১৭ মার্চ থেকে দেশের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ আছে। সার্বিক বিষয় বিবেচনা করে সিদ্ধান্ত হয়েছে, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের আওতাধীন বেসরকারি স্কুল-কলেজগুলো (এমপিওভুক্ত ও এমপিওবিহীন) শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে শুধু টিউশন ফি নিতে পারবে। কিন্তু অ্যাসাইনমেন্ট, টিফিন, পুনরায় ভর্তি, গ্রন্থাগার, বিজ্ঞানাগার, ম্যাগাজিন ও উন্নয়নবাবদ কোনো ফি নেওয়া যাবে না।

কেউ এ সংক্রান্ত অর্থ আদায় করলে তা ফেরত দেবে অথবা তা টিউশন ফির সঙ্গে সমন্বয় করবে। তবে যদি কোনও অভিভাবক চরম আর্থিক সংকটে থাকেন, তাহলে ঐ শিক্ষার্থীর টিউশন ফির বিষয়টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান কর্তৃপক্ষ বিশেষ বিবেচনায় নেবেন। তবে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে ফের আগের মতো সব ধরনের যৌক্তিক ফি নেওয়া যাবে।

অভিভাবকদের অসন্তোষ:করোনা পরিস্থিতির কারণে আর্থিক সংকটে থাকা অভিভাবকরা টিউশন ফি মওকুফের দাবি জানিয়ে আসছিলেন। এ নির্দেশনায় তাদের মধ্যে অসন্তোষ দেখা দিয়েছে।

তারা বলছেন, এটি একটি গোঁজামিলের নির্দেশনা। এতে প্রতিষ্ঠান কর্তৃপক্ষেরই লাভ হয়েছে। আর্থিক সংকটে থাকা অভিভাকদের জন্য এই নির্দেশনা কাজে আসবে না।